চট্টগ্রাম রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯

সর্বশেষ:

১৫ জুলাই, ২০১৯ | ১১:২৫ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাঙ্গুনিয়া

৪ দিন পর মিললো নিখোঁজ যুবকের লাশ

চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া ‍উপজেলায় ইছামতী নদীর স্রোতে ভেসে গিয়ে নিখোঁজ তরুন দিদারুল আলমের (২০) লাশ কর্ণফুলী নদীতে পাওয়া গেছে। আজ সোমবার (৭ জুলাই) দুুপুরে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের মর্গে লাশ সনাক্ত করেন দিদারুলের চাচা বাচা মিয়া। গতকাল রবিবার সন্ধ্যায় চট্টগ্রামের কর্নফুলী সেতু (নতুন ব্রীজ) এলাকা থেকে স্থানীয় লোকজন নদীতে লাশ দেখতে পেয়ে বাকলিয়া থানাকে খবর দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠায়। নিহত দিদারুল আলম রাজানগর ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ড হালিমপুর এলাকার আবুল কাশেম মাস্টার বাড়ির বদিউল আলমের পুত্র।



দক্ষিণ রাজা নগর ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) সদস্য জসিম উদ্দিন মাতব্বর বলেন, ময়নাতদন্তের পর দিদারুল আলমের লাশ নিজ বাড়ির কবরস্থানে সোমবার সন্ধ্যায় জানাজার পর দাফন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার ভোরে হালিমপুর এলাকার আবদুর রহমান ও নিখোঁজ যুবক দিদারুল আলম ইছামতী নদীর চরে সবজি তুলতে যায়। সবজি তোলার পর সকাল ১১ টার দিকে ইছামতী নদীতে বাঁশের চালি ভেসে যেতে দেখে তা ধরতে নদীতে ঝাঁপ দেয়। পাহাড়ি ঢলে বয়ে যাওয়া পানির তীব্র স্রোতে পড়ে দু’জন। এ সময় পানির স্রোতে আব্দুর রহমান নামের অপর যুবক সাঁতার কেটে তীরে উঠতে পারলেও স্রোতে ভেসে যায় দিদারুল আলম।
ফায়ার সার্ভিসের রাঙ্গুনিয়া ষ্টেশনের কর্মকর্তা আবু বকর ছিদ্দিক বলেন, তরুণ দিদারুল আলম নিখোঁজের পর চট্টগ্রামের ডুবুরী দল উদ্ধার অভিযান চালিয়েছেন। আমরাও তিনদিন ধরে খোঁজ নিয়েছি। নদীতে অতিরিক্ত স্রোত থাকায় লাশটি কর্ণফুলী নদীতে চলে যায়।

পূর্বকোণ/জিগার-রাশেদ

The Post Viewed By: 131 People

সম্পর্কিত পোস্ট

Optimized with PageSpeed Ninja