নিজস্ব সংবাদদাতা

সাংবাদিক জালাল উদ্দিন আহমদের মতো ক্ষণজন্মা মানুষেরা সমাজকে এগিয়ে নিতে অসামান্য অবদান রেখেছেন। সমাজের পিছিয়ে পড়া নারীদের শিক্ষার আলোয় নিয়ে আসার জন্য তিনি অক্লান্ত পরিশ্রম করেছেন। তিনি খলিলুর রহমান শিক্ষা কমপ্লেক্সের স্বপ্নদ্রষ্টা ছিলেন। এ প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার ক্ষেত্রে সাংবাদিকতার পাশাপাশি তিনি প্রতিষ্ঠাতা খলিলুর রহমানের পাশে থেকে সার্বক্ষনিক সহযোগিতা করেছেন। তার অবদানে খলিলুর রহমান শিক্ষা কমপ্লেক্স আজ পটিয়ায় নারী শিক্ষা বিকাশে বাতিঘর হিসেবে কাজ করবে।
সাংবাদিক জালাল উদ্দিন আহমদের ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে গত ১৩ মার্চ খলিলুর রহমান শিক্ষা কমপ্লেক্স আয়োজিত স্মারণ সভায় বক্তারা এসব কথা বলেন। খলিলুর রহমান ডিগ্রি কলেজের সাংবাদিক জালাল উদ্দিন আহমদ মিলনায়তনে কলেজ গভর্ণিং বডির সদস্য শিক্ষাবিদ এস এম মুছার সভাপতিত্বে ও প্রভাষক ভগীরথ দাশের সঞ্চালনায় প্রধান আলোচক ছিলেন কলেজ অধ্যক্ষ মুহম্মদ আবু তৈয়ব। মরহুমের জীবন ও কর্মের উপর আলোকপাত করে বক্তব্য রাখেন কলেজ গভর্নিং বডির সদস্য এডভোকেট এ কে এম শাহাজাহান উদ্দিন,্ মরহুমের সহধর্মিনী নুুরুন্নাহার জালাল, মুজিবুল ইসলাম মিরু, উপাধ্যক্ষ হাসিনা খানম, অধ্যাপক অভিজিত বড়–য়া মানু, প্রধান শিক্ষক সামশুল ইসলাম সিদ্দিক, অধ্যক্ষ কোহিনুর আকতার, সাংবাদিক হারুনুর রশিদ সিদ্দিকী, সাংবাদিক নুরুল ইসলাম, আইয়ুব বাবুল প্রমুখ। মোনাজাত পরিচালনা করেন মৌলনা আব্দুল হক নেজামী। মরহুমের স্মরণে দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যে ছিল খত্মে কোরআন,দোয়া মাহফিল, কবরে পুষ্পমাল্য অর্পণ ও স্মরণ সভা।

Share