ঢাকা ও চট্টগ্রামের ২২টি প্রাইম লোকেশনে দুই শতাধিক এপার্টমেন্ট ও কমার্শিয়াল স্পেস নিয়ে চট্টগ্রামের রেডিসন ব্লু আবাসন মেলায় অংশ নিয়েছে আবাসন কোম্পানি এপিক প্রপার্টিজ লিমিটেড। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে রিহ্যাব আয়োজিত এই আবাসন মেলা উদ্বোধনের পর ফ্ল্যাট ক্রেতাদের আগ্রহের কেন্দ্রে রয়েছে এপিক প্রপার্টিজ। আবাসন মেলায় এপিক প্রপার্টিজের স্টল নম্বর ৯ এবং মেলার কো-স্পন্সর।এপিক প্রপার্টিজের জেনারেল ম্যানেজার (সেলস এন্ড মার্কেটিং) প্রকৌশলী মাসুদুল হাসান জানান, এপিক প্রপার্টিজ চট্টগ্রামে আবাসন খাতে একটি জনপ্রিয় এবং বিশ্বস্থ ব্র্যান্ড। গত ১৬ বছরে বন্দরনগরী চট্টগ্রামেই এই প্রতিষ্ঠান ৪০টি’র বেশি এপার্টমেন্ট ও বাণিজ্যিক স্থাপনা নির্মাণ ও সফলভাবে হস্তান্তর করেছে। এর মধ্যে হস্তান্তরকৃত এপার্টমেন্টের সংখ্যা সাড়ে হাজারেরও অধিক’। এ কারেণ এপার্টমেন্ট ক্রেতারা সব সময় এপিকের উপর আস্থা রাখেন। গতকাল বৃহস্পতিবার রেডিসনে শুরু হওয়া রিহ্যাব আবাসন মেলায় নতুন নতুন লোকেশনে এপার্টমেন্ট প্রকল্প নিয়ে এসেছে উল্লেখ করে প্রকৌশলী মাসুদুল হাসান বলেন, ঢাকা ও চট্টগ্রামের ২২টি লোকেশনে দুই শতাধিক এপার্টমেন্ট ও কমার্শিয়াল স্পেস নিয়ে মেলায় অংশ নিয়েছে এপিক প্রপার্টিজ। চট্টগ্রাম নগরীর যেসব এলাকায় এপিকের নির্মাণাধীন আবাসন প্রকল্প রয়েছে সেগুলো হলো, সাউথ খুলশী (ইস্পাহানী হিলস), নাসিরাবাদ হাউজিং সোসাইটি, চট্টেশ্বরী রোড, কাতালগঞ্জ, চন্দনপুরা, লালখান বাজার, চকবাজার, চান্দগাঁও আবাসিক এলাকা, কালামিয়া বাজার, ফিরিঙ্গি বাজার। সব ধরনের ক্রেতাদের সামর্থ ও পছন্দকে গুরুত্ব দিয়েই এপিক ফ্ল্যাট নির্মাণ করে থাকে বলে জানান প্রকৌশলী মাসুদ। আবাসন মেলা থেকে যে কোন এলাকার এপিক প্রপার্টিজের এপার্টমেন্ট বা কমার্শিয়াল স্পেস বুকিং দিলে ক্রেতাদের বিভিন্ন সুবিধা দেয়া হচ্ছে। রয়েছে শিশুদের জন্য বিশেষ উপহারও। প্রসঙ্গত, রেডিসনে রিহ্যাব আবাসন মেলা চলবে আগামী ১৭ মার্চ পর্যন্ত। এই সময়ে মেলা থেকে এপিকের প্রকল্প ও এপার্টমেন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যাবে। এছাড়া সার্বক্ষণিক যোগাযোগের জন্য রয়েছে একটি হটলাইন নম্বর ০১৯৩৯ ৬৬৬২২২।-বিজ্ঞপ্তি

Share