নিজস্ব সংবাদদাতা , নাজিরহাট

আজ মঙ্গলবার হযরত গাউসুল আজম সৈয়দ গোলামুর রহমান (কঃ) মাইজভা-ারী প্রকাশ- বাবা ভা-ারীর কনিষ্ঠ পুত্র হযরত শাহ সুফী মাওলানা সৈয়দ শফিউল বশর মাইজভা-ারী কেবলার পবিত্র খোশরোজ শরীফ ফটিকছড়ি উপজেলার মাইজভা-ার গ্রামে সৈয়দ শফিউল বশর (কঃ)’র মাজার প্রাঙ্গণে লাখো ভক্ত-অনুরক্তদের উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত হবে। খোশরোজ শরীফ উপলক্ষে গত কয়েকদিন ধরে ধর্মবর্ণ নির্বিশেষে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল হতে ভক্ত-অনুরক্তরা মাইজভা-ারে সমবেত হচ্ছে। আখেরী মোনাজাত পর্যন্ত ভক্তদের আসা অব্যাহত থাকবে বলে জানা যায়। খোশরোজ শরীফ উপলক্ষে আগত ভক্তরা রহমানীয়া মঞ্জিলের তত্ত্বাবধানে মাজারের আশপাশের বিভিন্ন স্থানে অবস্থান করছে। হযরত শাহ সুফী মাওলানা সৈয়দ শফিউল বশর (কঃ) খোশরোজ শরীফ উপলক্ষে উনার মাজারকে আলোক সজ্জায় সজ্জিত করা হয়েছে। এ উপলক্ষে মাইজভা-ার দরবার শরীফস্থ গাউছিয়া রহমান মঞ্জিলের পক্ষে ব্যাপক কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। মূলত আজ ফজরের নামাযের পর সৈয়দ শফিউল বশর (কঃ) মাজারে গিলাফ ছড়ানোর মধ্য দিয়ে কর্মসূচির সূচনা হয়ে সারাদিন রাত জিকির, ছেমা,মিলাদ শেষে রাত ১২টায় আখেরী মোনাজাত অনুষ্ঠিত হবে। আখেরী মোনাজাতের পর তবারুক বিতরণ মধ্য দিয়ে মাওলানা সৈয়দ শফিউল বশর (কঃ) খোশরোজ শরীফের সমাপ্তি ঘটবে। রাত ১২টার আখেরী মোনাজাত পরিচালনা করবেন সাজ্জাদানশীনে গাউছিয়া রহমান মঞ্জিল সৈয়দ মুজিবুল বশর মাইজভা-ারী। এদিকে বিশাল এই আনজাম সামাল দিতে প্রশাসনের সমন্বয় সভায় দরবার শরীফে আগত আশেক-ভক্তদের সুবিধার্থে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। সিদ্ধান্ত মতে- সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ, স্বেচ্ছাসেবক ও মহিলা পুলিশ সার্বক্ষণিক দরবারে অবস্থান করবে। এছাড়া একজন ভ্রাম্যমাণ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সার্বক্ষণিক দায়িত্ব পালন করবেন। মেলায় সার্কাস, ভ্যারাটি শো, মদ, জুয়াসহ মাইজভা-ারের ভাবমূর্তি ক্ষুণœ হয় এ ধরণের সব কর্মকা- নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

Share