ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : জাতিসংঘ মহাসচিবের মুখপাত্র স্টিফেন দুজারিচ তুরস্কে সৌদি সরকার বিরোধী সাংবাদিক জামাল খাশোগির সম্ভাব্য নিহত হওয়ার খবরের প্রতিক্রিয়ায় বলেছেন, জাতিসংঘ অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে বিষয়টির ওপর নজর রাখছে।
তুরস্কের কয়েকটি গণমাধ্যম সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ প্রকাশ করে দাবি করেছে, এসব ভিডিওতে নিখোঁজ খাসোগির সম্ভাব্য হত্যাকারীদের ষড়যন্ত্রের প্রমাণ রয়েছে। ভিডিওতে দেখা যায়, সন্দেহভাজন কয়েকজন সৌদি গোয়েন্দা কর্মকর্তা ইস্তাম্বুলের বিমানবন্দর দিয়ে তুরস্কে প্রবেশ করছেন। তুরস্কের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন নিরাপত্তা কর্মকর্তার বরাত দিয়ে নিউ ইয়র্ক টাইমস মঙ্গলবার লিখেছে, সৌদি আরব থেকে তুরস্কের ইস্তাম্বুলে গিয়ে ১৫ জনের একটি ঘাতক টিম ওই হত্যা মিশনে অংশ নেয়।
সাংবাদিক খাশোগি কনস্যুলেটে পৌঁছার আগেই তারা হত্যার জন্য সার্বিক প্রস্তুতি সম্পন্ন করে এবং খাশোগি সেখানে প্রবেশের পর তারা তাকে হত্যা করে। হত্যার পর তার মৃতদেহ টুকরো টুকরো করে ফেলা হয়।

Share