নীড়পাতা » জেলা-উপজেলা-গ্রাম » দুই পরিবার করেনি, বাদি হয়ে মামলা পুলিশের

গণপিটুনির নামে পরিকল্পিত হত্যা অভিযোগ

দুই পরিবার করেনি, বাদি হয়ে মামলা পুলিশের

জাহেদুল আলম, রাউজান

রাউজানের পাহাড়তলীতে গণপিটুনিতে নিহত দুই চোর মোক্তার হোসেন ও সাইফুল ইসলামের পরিবার কোন মামলা না করায় অবশেষে পুলিশ বাদি হয়ে হত্যা মামলা দায়ের করেছে। রবিবার রাতে ঘটনাস্থল পরিদর্শনকারী পূর্ব গুজরা পুলিশ ফাঁড়ি তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ মহসিন রেজা বাদি হয়ে এই মামলাটি রুজু করেন। মামলায় এক-দেড়শ জন অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিকে আসামি দেখানো হয়েছে। মামলাটি তদন্তের দায়িত্ব পেয়েছেন থানার সেকেন্ড অফিসার মো. নুরুন্নবী।

এ প্রসঙ্গে এস.আই মহসিন রেজা ১০ সেপ্টেম্বর রাতে বলেন, ‘নিহতদের দুই পরিবারকেই মামলা দেয়ার জন্য বার বার বলা হয়েছে। আমরা অনেক অপেক্ষা করেছি। পরে সাফ সাফ জানিয়ে দেয় তারা মামলা করবে না। তারা না আসায় আমরা নিজেরাই মামলা করছি’।

এদিকে মোক্তার হোসেন ও সাইফুল ইসলামের নিহত হওয়ার ঘটনায় দুই পরিবারের কেউ মামলায় আগ্রহ প্রকাশ না করলেও সংবাদ কর্মীদের কাছে অভিযোগ করেছেন এটি গণপিটুনির নামে পরিকল্পিত হত্যাকা-। নিহত সাইফুলের বাবা কালু মিয়ারও অভিযোগ, তার ছেলেকে ডেকে নিয়ে হত্যা করা হয়েছে। আর মোক্তারের মা আয়েশা বেগমের অভিযোগ, তার ছেলেকে পরিকল্পিতভাবে গণপিটুনি দিয়ে হত্যা করা হয়েছে’। তবে ঘটনার দিন এ ধরণের কোন অভিযোগ তারা না করায় এবং পরবর্তীতে খুনের মামলা করতে দুই পরিবারই পুলিশের কাছে আগ্রহ প্রকাশ না করায় তাদের দাবিগুলোকে রহস্যজনক বলে মনে করছে পুলিশ। এ প্রসঙ্গে এসআই মহসিন রেজা বলেন, ‘গণপিটুনিতে হত্যাকা- হয়েছে বলেই উভয় পরিবারকে মামলা করতে বলা হয়েছিল, তারা মামলা না দেয়ায় আমরা মামলা করেছি। তদন্তে যা হওয়ার তা হবে’।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও থানার সেকেন্ড অফিসার নুরুন্নবী বলেন, ‘এ ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে।’ এ প্রসঙ্গে পাহাড়তলী ইউপি চেয়ারম্যান রোকন উদ্দিন বলেন, ‘মামলা না করে মোক্তার ও সাইফুলের পরিবার যা অভিযোগ করছে তা ভিত্তিহীন’।

Share