নীড়পাতা » জেলা-উপজেলা-গ্রাম » লামায় বসতবাড়ি দোকানে পাহাড়ি সন্ত্রাসীদের হানা

নগদ টাকা, মালামাল লুট

লামায় বসতবাড়ি দোকানে পাহাড়ি সন্ত্রাসীদের হানা

নিজস্ব সংবাদদাতা, লামা

বান্দরবানের লামায় পাহাড়ি অস্ত্রধারীদের তৎপরতা বেড়েছে। ৭ আগস্ট রাতে উপজেলার সদর ইউনিয়নের বৈল্যারচর বাজারের পার্শ্ববর্তী একটি বসতবাড়ি ও বাজারের দুটি দোকানে হানা দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ রাতের সাড়ে দশটার দিকে উপজেলার সদর ইউনিয়নের বৈল্যারচর বাজারের পাশে অবস্থিত রবি মেম্বারের বসতবাড়ি, বাজারের মুজিবের দোকান ও ঠাকুর ঝিড়ির রাশেদের দোকানে হানা দিয়ে নগদ টাকা ও মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।
ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মিন্টু কুমার সেন জানান, সাবেক ইউপি সদস্য রবিউল হোসেন গত সপ্তায় পুলুমার্মা নামক এক পাহাড়ি চাঁদাবাজকে পুলিশে ধরিয়ে দেন। এ ঘটনার জের ধরে মঙ্গবার রাতে বৈল্যারচর বাজারের কাছাকাছি অবস্থিত রবিউল মেম্বারের বাড়িতে হানা দেয়। এ সময় রবিউলকে বাড়িতে না পেয়ে দরজা-জানালা ভাংচুর করে। পরে বাজারের মুজিবুরের মুদি দোকানে ও ঠাকুরঝিড়ির রাশেদের দোকানে হানা দিয়ে নগদ টাকা, মোবাইলফোন, সোলার প্যানেলের তিনটি ব্যাটারি লুট করে নিয়ে যায়।
একইভাবে উপজেলার ফাঁশিয়াখালী ইউপি’র গয়ালমারা ও বনফুর বাজার, সরই ইউপি’র লুলাইং বাজার ও রুপসীপাড়া ইউপি’র নাইক্ষ্যংমুখ বাজারে পাহাড়ি অস্ত্রধারীদের তৎপরতা সম্প্রতি বেড়েছে বলে জানা গেছে।
লামা থানার পুলিশ পরিদর্শক আপ্পেলা রাজু নাহা জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। আগের সপ্তাহে চাঁদাবাজির ঘটনায় পুলুমার্মাকে আটকের জেরে তাদের এ অপতৎপরতা বলে স্থানীয়রা জানিয়েছেন।

Share