নিজস্ব প্রতিবেদক

আকবর শাহ থানাধীন বিশ্বব্যাংক আবাসিক এলাকার অরক্ষিত দাতব্য চিকিৎসালয় (আরবান ডিসপেন্সারি) সুরক্ষায় সিটি কর্পোরেশনের বরাদ্দ মিলেছে। সোয়া ২২ লাখ টাকা ব্যয় হবে এই ক্লিনিকের সীমানা দেওয়াল ভবন মেরামতের জন্য। গত অক্টোবর এই স্বাস্থ্যকেন্দ্রের উন্নয়ন মেরামত কাজের উদ্বোধন করেন স্থানীয় কাউন্সিলর মো. জহুরুল আলম জসিম।
এদিকে, এই স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্রে নিবন্ধনভুক্ত অস্বচ্ছল রোগীদের জন্য ওশুধ আনুষাঙ্গিক সেবা প্রদান কার্যক্রমও শুরু হয়েছে একইদিনে।
দীর্ঘ দুই দশক আগে নির্মিত এই আরবান ডিসপেন্সারটির সীমানা দেয়াল ছিল না। সংস্কার মেরামত কাজ না করায় এটি অনেকটা অরক্ষিত হয়ে পড়েছিল। উত্তর পাহাড়তলী ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. জহুরুল আলম জসিম জানান, স্বাস্থ্যকেন্দ্রটিকে সুরক্ষার জন্য সিটি কর্পোরেশন ২২ লাখ ৩০ হাজার টাকা বরাদ্দ দিয়েছে। আগামী তিন মাসের মধ্যে সীমানা দেয়াল মেরামত কাজ শেষ করা হবে। অবকাঠামো নিরাপত্তা সুবিধা নিশ্চিত হলে চিকিৎসক রোগীদের সেবা কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চালিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে। অবাঞ্চিত ঘটনা রোধ হবে।
স্থানীয় সূত্র জানায়, সিটি কর্পোরেশন পরিচালিত আট কাঠা জমির ওপর নির্মিত এই স্বাস্থ্যকেন্দ্রটির উপর এলাকার ১৫ সহ¯্রাধিক লোকের স্বাস্থ্যসেবা নির্ভরশীল। টিকাদান সেবাপ্রদান ছাড়াও স্বাস্থ্যকেন্দ্রটিতে একজন এমবিবিএস চিকিৎসক, একজন করে ফার্মাসিস্ট নার্স রয়েছেন। যারা আগত রোগীদের চিকিৎসাসেবা দিয়ে আসছেন। ১০ টাকা ফি দিয়ে যে কেউ এই স্বাস্থ্যকেন্দ্র থেকে চিকিৎসা সুবিধা পেতে পারেন। সীমিত পরিমাণেরও ওষুধও এই কেন্দ্র থেকে সরবরাহ করা হয়।
এদিকে, উত্তর পাহাড়তলী ওয়ার্ডের অন্য দুটি স্বাস্থ্যকেন্দ্রের মতো বিশ্বব্যাংক কলোনির এই দাতব্য চিকিৎসালয়েও নিবন্ধিত অস্বচ্ছল ৮৪১ জন রোগীকে হেলথ কার্ড প্রদান করা হয়েছে। তারা প্রত্যেকে সারাবছরে আড়াই হাজার টাকার ঔষধ সুবিধা পাবেন। এদের মধ্যে গর্ভবতীরা ওশুধপথ্য কেনার জন্য জনপ্রতি হাজার টাকা অর্থ সাহায্য পাবেন। অস্বচ্ছল কারো সিজারিয়ান অপারেশন হলে তাকে অপারেশন খরচ বাবদ হাজার টাকা প্রদান করবে সিটি কর্পোরেশন