ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : ই-কমার্সে বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় প্রতিষ্ঠান আলিবাবার চেয়ারম্যান জ্যাক মা-এর সঙ্গে বৈঠক করেছেন নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। একে ‘তাৎপর্যপূর্ণ বৈঠক’ হিসেবে মন্তব্য করেছেন ট্রাম্প। তার প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে যুক্তরাষ্ট্রের বাণিজ্য ক্ষেত্রে ১০ লাখ নতুন চাকরির সুযোগ সৃষ্টি করতে সাহায্য করার কথা বলেছেন জ্যাক মা।

বৈঠকের পর জ্যাক মা বলেছেন, চীন-যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্ক আরো শক্তিশালী, বন্ধুত্বপূর্ণ ও ভালো করার বিষয়ে উভয়ে একমত হয়েছেন। দুই দেশের বাণিজ্যের সেতুবন্ধনে যুক্তরাষ্ট্রে ১০ লাখ লোকের কর্মসংস্থানের আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি। প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারের সময় চীন থেকে পণ্যসামগ্রী আমদানির ওপর শুল্ক আরোপের হুমকি দেন ট্রাম্প। তবে এখন তার অবস্থান বিপরীত দিকে ধাবিত হচ্ছে। কর্মসংস্থান বাড়ানোর জন্য ‘চোখের বিষ’ সেই চীনের দিকে ঝুঁকতে হচ্ছে ট্রাম্পকে। নিউ ইয়র্কের ম্যানহাটানে ট্রাম্প টাওয়ারে বৈঠকের পর লিফট থেকে জ্যাক মাকে নিয়ে নেমে লবিতে অপেক্ষমাণ সাংবাদিকদের ট্রাম্প বলেন, ‘জ্যাক ও আমি বিশাল কিছু করতে যাচ্ছি।’ ট্রাম্পকে ‘চৌকস ও খোলা মনের মানুষ’ অভিহিত করে জ্যাক মা বলেন, চীনের ভোক্তাদের কাছে পণ্যসামগ্রী বিক্রির জন্য তার প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে যুক্তরাষ্ট্রে নতুন কর্মসংস্থান সৃষ্টি করবেন তিনি।